সময় লাগলো ১ বছর, ১৭০০ কিমি পথ পেরিয়ে, মহারাষ্ট্র থেকে কেরল পৌঁছালো দৈত্যাকৃতি ট্রাক !

আরো একমাস আগেই ট্রাকটি তিরুবনন্তপুরমে পৌঁছে যেত। লকডাউন এর জন্য প্রায় একমাস অন্ধ্রপ্রদেশে আটকে ছিল ট্রাকটি। ট্রাকটির সঙ্গেই ছিল ৩০ জন ইঞ্জিনিয়ার

0
3339
Image-Google

দা টাইমস ওফ কলকাতা ডেস্ক- ঘটনাটি অবাক করে দিয়েছে দেশবাসীকে। মহারাষ্ট্র থেকে রওনা দেওয়া একটি দানব আকারের ট্রাক মহাকাশ গবেষণার গুরুত্বপূর্ণ একটি যন্ত্র নিয়ে এক বছর পর পৌঁছালো কেরলের তিরুবনন্তপুরম এর বিক্রম সারাভাই স্পেস সেন্টারে (Vikram Sarabhai Space Centre)।বিক্রম সারাভাই স্পেস সেন্টারের একটি গুরুত্বপূর্ণ প্রোজেক্টের জন্য আনা হয়েছে ওই বিশাল আকৃতির যন্ত্রটিকে।

সূত্র মারফত জানা গিয়েছে আগের বছর অর্থাৎ ২০১৯ সালের জুলাই মাসে মহারাষ্ট্রের নাসিক থেকে রওনা দিয়েছিল ৩৮ চাকা যুক্ত দানবাকৃতি ওই ট্রাকটি। সাধারণত মহারাষ্ট্রের নাসিক থেকে কেরালার তিরুবনন্তপুরম ট্রাকে পৌঁছাতে সময় লাগে ৫-৭ দিন। ৭৮ টন ওজনের ওই বিশেষ যন্ত্রটি নিয়ে প্রায় ১৭০০ কিমি পথ পেরিয়ে এক বছর পর গত শনিবার তিরুবনন্তপুরম পৌঁছায় ওই ট্রাকটি।

Image-Google


চারটি রাজ্য পেরিয়ে অবশেষে গন্তব্যে পৌঁছায় ওই ট্রাকটি। দীর্ঘ এক বছর সময় লাগার কারণ হলো অত্যন্ত ধীরগতিতে সতর্কতার সঙ্গে ট্রাকটিকে আনতে হয়েছে। যাতে যন্ত্রটির কোনো ক্ষতি না হয়ে যায়।যে চারটি রাজ্য পেরিয়ে ট্রাকটি গন্তব্যে পৌঁছেছে যাত্রাপথের সময় সেই চারটি রাজ্য থেকেই বিশেষ ব্যবস্থা করা হয়েছিল। কোথাও খারাপ রাস্তা সারাই করে, গাছ কেটে সড়ক চওড়া করে কোথাও আবার বিদ্যুতের খুঁটি সরিয়ে রাস্তা করে দেওয়া হয় ট্রাকটিকে।


আরো একমাস আগেই ট্রাকটি তিরুবনন্তপুরমে পৌঁছে যেত। লকডাউন এর জন্য প্রায় একমাস অন্ধ্রপ্রদেশে আটকে ছিল ট্রাকটি। ট্রাকটির সঙ্গেই ছিল ৩০ জন ইঞ্জিনিয়ার এবং কর্মীদের একটি বিশেষ দল। গোটা যাত্রাপথে যন্ত্রটি যাতে সুরক্ষিত থাকে সেদিকে অত্যন্ত সতর্ক দৃষ্টি ছিল তাদের।
স্পেস সেন্টারের ওই যন্ত্রটির ওজন ৭৮ টন, উচ্চতা প্রায় ৭.৫ মিটার এবং চওড়ায় প্রায় ৭ মিটার। এই বিপুল ওজন ও আয়তনের যন্ত্রটি বহনে সক্ষম ওই ট্রাক টির আকারও ‌ছিল বিশালাকৃতি। ট্রাক টির চেসিস বা মালবাহী পেছনের অংশটি ছিল অত্যন্ত বড়ো।

বিক্রম সারাভাই স্পেস সেন্টারের এক আধিকারিক জানিয়েছেন, যে নতুন যন্ত্রটি আনা হয়েছে সেটি মহাকাশযান এবং মহাকাশ গবেষণার যাবতীয় সরঞ্জাম তৈরিতে ব্যবহৃত হবে। একমাস পর থেকেই যন্ত্রটির ব্যবহার শুরু হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here